টোঙ্গায় ঝড়ে পার্লামেন্ট ভবন বিধ্বস্ত

ঢাকা , ১৩ ফেব্রুয়ারী , (ডেইলি টাইমস ২৪):

প্রবল ঝড়ে প্রশান্ত মহাসাগরীয় দেশ টোঙ্গার পার্লামেন্ট ভবন বিধ্বস্ত হয়েছে। গত ৬০ বছরের মধ্যে দেশটিতে আঘাত হানা ঝড়গুলোর মধ্যে এটিই ছিল সবচেয়ে শক্তিশালী।

মঙ্গলবার বিবিসি জানিয়েছে, ঘূর্ণিঝড় গিতা ছিল চার মাত্রার ঝড়। সোমবার রাতে এটি টোঙ্গায় আঘাত হানে এবং ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির চিহ্ন রেখে যায়। দ্বীপ রাষ্ট্রটির বিদ্যুৎ ব্যবস্থায় বিপর্যয় দেখা দিয়েছে। ঝড়ে বাড়িঘরের ছাদ ভেঙ্গে পড়েছে।

ঝড়টি আঘাত হানার আগেই সরকার জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছিল। উপকূলীয় এলাকা থেকে লোকজনকে সরিয়ে আশ্রয় কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

ম্যারি ফনুয়া নামে এক প্রত্যক্ষদর্শী রেডিও নিউজিল্যান্ডকে বলেছেন, ‘ভয়ংকর বাতাস ছিল। এটা মাথার ওপর দিয়ে গর্জন করছিল। ছাদ ধ্বসে পড়ার শব্দ আমরা শুনতে পাচ্ছিলাম।

যুক্তরাজ্যের আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে, ঝড়ে বাতাসের গতিবেগ ছিল ঘন্টায় ২০০ কিলোমিটারেরও বেশি। টোঙ্গার আধুনিক ইতিহাসে আঘাত হানা ঝড়গুলোর বাতাসের গতির মধ্যে এটি রেকর্ড।

প্রশান্ত মহাসাগরে ১৭০টিরও বেশি দ্বীপ নিয়ে টোঙ্গা গঠিত। দেশটির পার্লামেন্ট ভবন ১০০ বছরেরও পুরোনো। এটি মেরামত করার আগ পর্যন্ত এমপিরা কোথায় বসবেন তা এখনো জানা যায়নি।