সবাই ভালো থাকবেন: মন্ত্রিসভার শেষ বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী

0
43

ঢাকা , ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস২৪):

মন্ত্রিসভা থেকে অনানুষ্ঠানিকভাবে বিদায় নিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সোমবার অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী এমনটাই বলেছেন বলে মন্ত্রিসভার একাধিক সদস্য জানিয়েছেন।

নবম ওয়েজবোর্ডের সুপারিশ

সংবাদপত্র ও বার্তা সংস্থার কর্মীদের বেতন বাড়াতে নবম মজুরি বোর্ড যে সুপারিশ করেছে তা পর্যালোচনায় পাঁচ সদস্যের একটি মন্ত্রিসভা কমিটি করে দিয়েছে সরকার।

সংস্কৃতিমন্ত্রীকে প্রধান করে গঠিত ওই কমিটিতে শিল্পমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, তথ্যমন্ত্রী এবং শ্রমমন্ত্রীকে রাখা হয়েছে। তথ্য মন্ত্রণালয় কমিটিতে সাচিবিক দায়িত্ব পালন করবে।

মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘নবম সংবাদপত্র মজুরি বোর্ড, ২০১৮’ এর সুপারিশ উত্থাপন করা হলে এই কমিটি গঠন করা হয়।

বৈঠক শেষে সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান।

তিনি জানান, এ বৈঠকই বর্তমান সরকারের মন্ত্রিসভার শেষ বৈঠক। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মন্ত্রিসভা থেকে অনানুষ্ঠানিকভাবে বিদায় নিয়েছেন বলে একাধিক মন্ত্রিসভার সদস্য জানিয়েছেন।

নবম ওয়েজ বোর্ডের বিষয়ে শফিউল আলম বলেন, ‘আগামী ২৮ জানুয়ারির মধ্যে নবম বেতন কাঠামোর প্রজ্ঞাপন জারি করতে হবে। সে জন্য মন্ত্রিসভা কমিটিকে ১৮ জানুয়ারির মধ্যে সুপারিশ দিতে বলা হয়েছে। এই কমিটি (মন্ত্রিসভা কমিটি) যেটা চূড়ান্ত করবে সেটাই গেজেট আকারে প্রকাশ করা হবে। যে সুপারিশ এসেছে উনারা তা পর্যালোচনা করবেন।’

পাঁচটি শ্রেণিতে ১৫টি বেতনক্রম নির্ধারণে সুপারিশ করা হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, প্রথম তিন গ্রেডে ৮০ শতাংশ এবং শেষের তিন গ্রেডে ৮৫ শতাংশ বেতন বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে। এছাড়া ৬০-৭০ শতাংশ বাড়ি ভাড়া এবং ২০ শতাংশ হারে বৈশাখী ভাতা যুক্ত করা ও মিডিয়ার জন্য ভিন্ন একটি আইন করার সুপারিশ করা হয়েছে। তবে ওয়েজবোর্ড কমিটির সুপারিশের বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য প্রকাশ করেননি মন্ত্রিপরিষদ সচিব।

২০১৩ সালের ১৫ সেপ্টেম্বর সাংবাদিকদের মূল বেতন ৭৫ শতাংশ বাড়িয়ে অষ্টম মজুরি কাঠামো ঘোষণা করে সরকার, যা ওই বছরের ১১ সেপ্টেম্বর থেকে কার্যকর ধরা হয়।

আপিল বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি মো. নিজামুল হককে প্রধান করে গত ২৯ জানুয়ারি ১৩ সদস্যের নবম ওয়েজবোর্ড গঠন করা হয়। এরপর গত ১১ সেপ্টেম্বর সংবাদপত্র ও বার্তা সংস্থার কর্মীদের জন্য মূল বেতনের ৪৫ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা ঘোষণা করে সরকার, যা গত ১ মার্চ থেকে কার্যকর ধরা হয়।

নবম ওয়েজবোর্ডের প্রধান বিচারপতি মো. নিজামুল হক গত ৪ নভেম্বর সচিবালয়ে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনুর হাতে তাদের প্রতিবেদন জমা দেন। ২০১৫ সালে সরকারি কর্মচারীদের নতুন বেতন কাঠামো ঘোষণার পর থেকে নতুন বেতন কাঠামোর দাবি জানিয়ে আসছিলেন সাংবাদিকদের সংগঠনগুলো। এই দাবিতে দীর্ঘ দিন কর্মসূচিও পালন করে তারা।

ইপিজেড শ্রম আইনের অনুমোদন

ট্রেড ইউনিয়ন করার বিধান রেখে ‘বাংলাদেশ ইপিজেড শ্রম আইন-২০১৮’ এর খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। এ প্রসঙ্গে মন্ত্রিপরিষদ সচিব শফিউল আলম বলেন, ‘ট্রেড ইউনিয়ন বা শ্রমিকদের এই সংগঠনের নাম হবে শ্রমিককল্যাণ সমিতি। এই সমিতির গঠনতন্ত্র শ্রমিকরা নিজেরাই বানাবেন।’

তিনি বলেন, ‘গত ১৩ বছর ধরে এই আইনটি পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। আজ এর চূড়ান্ত অনুমোদন দেয়া হলো। শ্রম আইন-২০০৬, আইএলও, ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও কানাডার সঙ্গে পরামর্শের পর সমন্বয় করে এই আইনটি করা হয়েছে।’

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এ আইনে যে বিধান রয়েছে তা হলো শ্রমিকদের ২০ শতাংশ সম্মতি দিলেই শ্রমিক সংঘ করা যাবে। বেপজার পাশাপাশি শ্রম পরিদফতরের পরিদর্শকরাও এই কারখানা পরিদর্শন করতে পারবেন। আগে শুধু বেপজার পরামর্শকরাই ইপিজেডের কারখানা পরিদর্শন করতে পারতেন। ইপিজেডের অভ্যন্তরে স্থাপিত শিল্প কারখানায় শ্রমিকদের কোনো দাবি আদায়ের ক্ষেত্রে ধর্মঘট বা আন্দোলন-সংগ্রাম করার প্রয়োজন হলে দুই-তৃতীয়াংশ শ্রমিকের সম্মতি থাকলেই চলবে।

তিনি বলেন, এর আগে আরও বেশি শ্রমিকের সম্মতি লাগত। কারখানায় চাকরি করা অবস্থায় কোনো শ্রমিকের ৬০ বছর পূর্ণ হলে, তার চাকরি জীবনের প্রতি বছরের জন্য ৪৫ দিনের বেতনের হিসাবে টাকা পাবেন। আগে শ্রমিকরা এখানে ৩০ দিনের বেতনের সমান টাকা পেতেন।

বঙ্গবন্ধুর নামে অ্যাভিয়েশন বিশ্ববিদ্যালয়

দক্ষ বৈমানিক ও বিমান প্রকৌশলী তৈরি করতে ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অ্যাভিয়েশন অ্যান্ড অ্যারোস্পেস বিশ্ববিদ্যালয় আইন, ২০১৮’ চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

এ প্রসঙ্গে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এটা আমাদের দেশের জন্য একটা নতুন। অ্যারোস্পেস শুধুমাত্র এমআইএসটিতে (মিলিটারি ইনস্টিটিউট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি) একটা ডিপার্টমেন্ট আছে। আর কোথাও কোনো সুযোগ নেই, এমনকি বুয়েটেও নেই। অ্যারোস্পেস ইঞ্জিনিয়ারিংকে সম্প্রসারিত করার জন্য এ আইনটি করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়টির গঠন নিয়ে শফিউল আলম বলেন, অন্যান্য ইউনিভার্সিটি যে রকম, একেবারে হুবহু একই রকম অনুসরণ করা হয়েছে। তেমন কোনো পরিবর্তন নেই। এ বিষয়ে অর্ডিন্যান্স (অধ্যাদেশ) জারি হবে। বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর তত্ত্বাবধানে এই বিশ্ববিদ্যালয়টির ক্যাম্পাস ঢাকার পূর্বাচল যাওয়ার পথে স্থাপিত হবে বলে জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব।

তিনি আরও জানান, বৈঠকে বীমা কর্পোরেশন আইন এবং আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউট (সংশোধন) আইনেও অনুমোদন দেয়া হয়েছে।

তারামন বিবির মৃত্যুতে শোক

বীরপ্রতীক খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধা তারামন বিবিরি মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছে মন্ত্রিসভা। বৈঠক শেষে এ বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম।

গত শুক্রবার রাত দেড়টার দিকে কুড়িগ্রামের রাজীবপুর উপজেলার কাচারিপাড়া গ্রামে নিজ বাসভবনে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তারামন বিবি।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব আরও জানান, বৈঠকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ জয়ী বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে অভিনন্দন জানানো হয়েছে। এছাড়া শেখ হাসিনার বক্তৃতা নিয়ে তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রস্তুত করা দুই খণ্ড বই প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেয়া হয়েছে।

পদত্যাগ করা চারজন মন্ত্রীর বিষয়ে শফিউল আলম সাংবাদিকদের বলেন, ‘তাদের বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তারা সভায় উপস্থিত ছিলেন।’