ঐক্যফ্রন্টের দুর্ব্যবহার থেকে কেউ রেহাই পাচ্ছে না

0
21

ঢাকা , ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস২৪):

আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্বাচন কমিশনে দুর্ব্যবহার এবং পুলিশকে গালাগালি করার অভিযোগে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট নেতৃবৃন্দের কঠোর সমালোচনা করেছেন।

শেখ হাসিনা আজ বুধবার বিকেলে তাঁর ব্যক্তিগত বাসভবন ধানমন্ডির সুধা সদন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কুষ্টিয়া, নওগাঁ ও চাঁদপুরের নির্বাচনী জনসভায় দেওয়া ভাষণে ঐক্যফ্রন্টের সমালোচনা করেন। তিন জেলার আওয়ামী লীগ ও মহাজোটের প্রার্থীদের ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে পরিচয় করিয়ে দিয়ে তাঁদের জন্য জনগণের ভোট চান প্রধানমন্ত্রী।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘তাদের দুর্ব্যবহার থেকে কেউ রেহাই পাচ্ছে না। তারা নির্বাচন কমিশনে গিয়ে ঝগড়া করছে এবং পুলিশের বিরুদ্ধে এমন বাজে ভাষা ব্যবহার করছে, যা ভাষায় প্রকাশ করা যায় না।’

ড. কামাল হোসেনের নাম উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের সভাপতি বলেন, ‘যিনি একজন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন আইনজীবী হিসেবে পরিচিত, তাঁর কাছ থেকে কেউ এ ধরনের ব্যবহার আশা করে না। তিনি এর আগে আদালতে অ্যাটর্নি জেনারেলকে আশোভন মন্তব্য করেছেন এবং সাংবাদিককে খামোশ বলেও ধমক দিয়েছেন।

শেখ হাসিনা ভাষণে উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বজায় রাখার মাধ্যমে জনগণকে পুনরায় সেবা করার সুযোগ দানের জন্য ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনে নৌকা মার্কায় ভোট দিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান। তিনি বলেন, ‘আমরা ইতিমধ্যেই অনেক উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করে সেগুলো বাস্তবায়ন করেছি এবং অনেকগুলো বাস্তবায়নাধীন। কাজেই আমি দেশবাসীকে বলব, উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখার জন্য নৌকায় ভোট দিয়ে আমাদের আরেকটিবার দেশসেবার সুযোগ করে দিতে।’ তিনি এ সময় বিএনপি-জামায়াত জোটকে প্রত্যাখ্যান করার আহ্বান জানিয়ে বলেন, ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনে তারা যেন ক্ষমতায় আসতে না পারে। কারণ, তাহলে তারা দেশকে ধ্বংস করে দেবে।

চার জেলায় ভিডিও কনফারেন্স কাল

আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কাল বৃহস্পতিবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে চার জেলায় নির্বাচনী প্রচার কর্মসূচিতে অংশ নেবেন।
আওয়ামী লীগের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ বুধবার এ কথা জানিয়ে বলা হয়, শেখ হাসিনা আগামীকাল বেলা তিনটা থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কুমিল্লা টাউন হল ময়দান, টাঙ্গাইল পৌর উদ্যান, যশোর টাউন হল ময়দান ও পাবনা এডওয়ার্ড কলেজ মাঠে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত নির্বাচনী প্রচার কর্মসূচিতে অংশ নেবেন।
সংশ্লিষ্ট জেলার এসব কর্মসূচিতে আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ এবং নির্বাচনী এলাকাগুলোর আওয়ামী লীগ ও মহাজোট মনোনীত প্রার্থীরা উপস্থিত থাকবেন।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের আজ এক বিবৃতিতে এসব কর্মসূচি সফলভাবে সম্পন্ন করার জন্য সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।