এক ‘কমার’ জন্য গচ্চা ৫ মিলিয়ন ডলার!

0
20

ঢাকা , ০২ জানুয়ারি , (ডেইলি টাইমস২৪):

বন্ধু কিংবা কোনো শুভাকাঙ্খীকে চিঠি লিখতে গিয়ে যদি কোনো ভুল হয় তাহলে হয়তো সেটাতে আহামরি কিছু হয় না। অথবা চিঠিতে যতিচিহ্ণের ব্যবহার একটু এদিক ওদিক হলে এমন কী-ইবা আসে যায়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম আসার পর বানানের ভুল আরো উল্লেখযোগ্য হারে চোখে পড়ছে। তবে ছোট্ট একটা কমার কারণে কারো পাঁচ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ক্ষতি হয়ে যাবে সেটা নিশ্চয় ভাবা যায় না! কিন্তু ঠিক এমনই একটি ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের পোর্টল্যান্ড সিটিতে।

শহরের তিন দুগ্ধখামারের লরি চালক দাবি করেছেন, সরকারি আইন অনুযায়ী বছরের পর পর ওই চালকদের বাধ্যতামূলক ওভারটাইমের মজুরি দেয়া হচ্ছে না। তাদের যুক্তি আইনে যে সব কাজ ওভারটাইমের বাইরে রাখা হয়েছে সে কাজের বাইরেও তাদের কাজ করতে হচ্ছে। কারণ আইন অনুযায়ী চুক্তিপত্রে কমা দিয়ে অন্যন্য কাজকে আলাদা করে রাখলেও এক জায়গায় কোনো কমা ব্যবহার করা হয়নি। আর সে কারণে ওই কাজের জন্য এতবছর তারা কোনো মজুরি পায়নি। যেটা তাদের প্রাপ্য।

কৃষি, মাংস ও মাছ জাতীয় পণ্য- এই তিন ধরনের পচনশীল পণ্যের বিষয়ে আইনে বলা হয়েছে, প্যাকেটজাতকরণ, প্রক্রিয়াকরণ, সংরক্ষণকরণ, ঠাণ্ডা করা, শুষ্ক করা, বাজারজাত করা, একত্র করা, অন্যত্র পাঠানোর জন্য অথবা বিতরণের জন্য প্যাকিং করার ক্ষেত্রে কোনো ওভারটাইম দেয়া হবে না। কিন্তু ওই তিন লরি ড্রাইভার যুক্তি দিয়ে প্রমাণ করেছেন যেহেতু বিতরণ এবং অন্যত্র পাঠানোর জন্য প্যাকিং এই দুইয়ের মাঝে কমা নেই সে কারণে এটা ওভারটাইমের অংশ হিসেবে ধরা হবে। কারণ এখানে কমা ব্যবহার হলেই কেবল শর্তের অন্তর্ভুক্ত হতো।

আর এর পরিপ্রেক্ষিতেই যুক্তরাষ্ট্রের আদালত ওই চালকদের পক্ষে রায় দিয়েছেন। ফলে প্রতিষ্ঠানটির ১২০ জন চালককে এতোদিন শ্রমের জন্য বাড়তি পাঁচ মিলিয়ন মার্কিন ডলার পরিশোধ করতে হবে।

সূত্র : বিবিসি