খেলাধুলা

হেসেখেলে নাসির-নুরুলদের শিরোপার হাসি

ঢাকা , ০৪ মার্চ , (ডেইলি টাইমস২৪):

তিনটি গেট উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে, তাতেই দর্শকের উপস্থিতি বলার মতোই। টিভিতে খেলাটা সরাসরি সম্প্রচারও হচ্ছে। ওয়ালটন ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ (ডিপিএল) টি-টোয়েন্টির ফাইনালকে জাঁকজমক করার সর্বোচ্চ চেষ্টাই করেছে আয়োজকেরা। কিন্তু ম্যাচটা আর জমজমাট হলো কোথায়! প্রাইম দোলেশ্বরকে হেসেখেলে হারিয়ে শিরোপা জিতল নাসির-নুরুলদের শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব।

টস জিতে ব্যাট করতে নামা শেখ জামালের শুরুটা হলো খুবই ভালো। ফারদিন হাসান-ইমতিয়াজ হোসেনের ওপেনিং জুটি ৪৭ বলে ৬২ রান এনে দেওয়ার পরও শেখ জামালের স্কোর অবশ্য যত বড় হওয়ার কথা ততটা হয়নি। হয়নি ১৪ বলে ১৪ রানে তুলতেই ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলায়। এর মধ্যে আছেন নাসির হোসেনও (৫)। অধিনায়ক নুরুল হাসান আর তানভীর হায়দারের ষষ্ঠ উইকেটে ৪৯ রান না যোগ হলে শেখ জামালের লড়াইয়ের স্কোরই পাওয়া হয় না। নুরুল ৩৩ আর তানভীর করেছেন ৩১ রান। তবে শেখ জামালের ইনিংস সর্বোচ্চ রানটা এসেছে ওপেনার ইমতিয়াজের ব্যাট থেকে, করেছেন ৫৬ রান। এ ম্যাচেও দারুণ বোলিং করেছেন ফরহাদ রেজা, ৩ উইকেট পেয়েছেন ৩২ রান খরচে।

১৫৮ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে শেখ জামালের মতো ভালো শুরু হয়েছে দোলেশ্বরেরও। সাইফ হাসান-মোহাম্মদ আরাফাতের ওপেনিং জুটি এনে দিয়েছে ৫৪ বলে ৬২ রানের জুটি। কিন্তু অতটুকুই। ৩৩ রান করা আরাফাত চোট পেয়ে মাঠ ছাড়ার পরই ছন্দপতন। দোলেশ্বর আর স্বচ্ছন্দে এগোতেই পারেনি। সর্বোচ্চ ৪৫ রান করে দোলেশ্বর অধিনায়ক ফরহাদ রেজা শুধু পরাজয়ের ব্যবধানই কমিয়েছেন। দোলেশ্বর নির্ধারিত ২০ ওভারে করতে পেরেছে ৮ উইকেটে ১৩৩। শেখ জামালের পেসার শহিদুল ইসলাম ১৯ রানে পেয়েছেন ৪ উইকেট।

ওপেনিংয়ে নেমে মূল্যবান ৫৬ রান করে ম্যাচসেরা ইমতিয়াজ, তবে পুরো টুর্নামেন্টে ফরহাদ রেজা যেভাবে খেলেছেন, টুর্নামেন্ট সেরার পুরস্কারটা তাঁর হাতেই মানিয়েছে।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button