রাজনীতি

২০দলীয় জোট নয় বিএনপিও থাকবে না বাংলাদেশে: মায়া

ডেইলি টাইমস ২৪:
সুপ্রিম কোর্ট বারের সভাপতি খন্দকার মাহবুব হোসেনের উদ্দেশ্যে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বলেন, আপনার অবস্থা দেখে মনে হয় ‘ঠাকুর ঘরে কে রে, আমি কলা খাই না’। শুধু ২০দলীয় জোট নয় আপনার দল বিএনপিও বাংলাদেশে থাকবে না।
রবিবার দুপুরে আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নগর আওয়ামী লীগের জরুরী বর্ধিত সভায় তিনি এসব কথা বলেন। ২৩ জুন আওয়ামী লীগের ৬৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী সফল করতে এ বর্ধিত সভার আয়োজন করা হয়।
মোফাজ্জল হোসেন মায়া বলেন, ২০ জোট দেশে সহিংসতা করছে। এ জোটের রয়েছে যুদ্ধাপরাধী। যারা যুদ্ধাপরাধ করছেন তাদের শাস্তি পেতেই হবে। এটা এদেশের মানুষের মৌলিক কামনা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এসকল অপরাধের বিচার শেষ করবেনই। যুদ্ধাপরাধী ও তাদের দোসররা এদেশে রাজনীতি করবে সেটা জনগন মেনে নেবে না।
প্রসঙ্গত গতকাল জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সভায় সুপ্রিম কোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ও বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেন, ২০-দলীয় জোট ভাঙবে না, বরং আরও সম্প্রসারিত হবে ।
ত্রাণমন্ত্রী বলেন, ৫ জানুয়ারি নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করে বিএনপি ভুল করছে। আর তারা যদি ২০১৯ সালের নির্বাচনে অংশ গ্রহণ না করে তাহলে সবই হারাবে। দলটির অস্তিত্ব বিপন্ন হয়ে যাবে।
ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম বলেন, বিএনপি যে রাজনৈতিক ভাবে দেউলিয়া হয়ে গেছে সেটা গতকালে খন্দকার মাহবুবের বক্তব্যে আরেকবার প্রমাণিত হয়েছে। কারণ খন্দকার মাহবুব বলেছেন ‘আওয়ামী লীগকে ভারতীয় কংগ্রেস সহযোগিতা করতো তাই আমরা সে সময় ভারতের সমালোচনা করছি।
এখন বিজেপি সরকার ক্ষমতায় আছে তাই আমরা ভারতকে সমর্থন করছি’। একটি রাজনৈতিক দল কতটুকু দেউলিয়া হলে বাহিরের হস্তক্ষেপ কামনা করে। তারা (বিএনপি) ধ্বংসের দিকে যাচ্ছেন। তারা ক্রমান্বয়ে বিপন্ন হয়ে যাবেন।
নগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এমএ আজিজের সভাপতিত্বে বর্ধিত সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন, সহ-সভাপতি মুকুল চৌধুরী, ফয়েজ উদ্দিন মিয়া, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাজী সেলিম, প্রচার সম্পাদক আবদুল হক সবুজ, দফতর সম্পাদক সহিদুল ইসলাম মিলন, সহ দফতর সম্পাদক জামাল উদ্দিন প্রমুখ।
Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button