জাতীয়

সরকারবিরোধীরা গুপ্তহত্যা করে উন্নয়ন ব্যাহত করার চেষ্টা করছে

ঢাকা, ১৭ জুন, (ডেইলি টাইমস ২৪):

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, সরকারবিরোধীরা রাজনৈতিকভাবে পরাজিত হয়ে ভিন্ন কৌশলের আশ্রয় নিচ্ছে। তারা নিরীহ লোকদের গুপ্তহত্যা করে দেশের উন্নয়নকে ব্যাহত করার চেষ্টা করছে।

উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে দুর্বৃত্তদের মোকাবেলা করতে হবে। এসময় তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৬ কোটি মানুষকে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

শুক্রবার (১৭ জুন) বিকেলে বড়াইগ্রাম উপজেলার বনপাড়ায় দুর্বৃত্তের হামলায় নিহত ব্যবসায়ী সুনীল গোমেজের পরিবারকে সমবেদনা জানাতে এসে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে নিহত সুনীল গোমেজের পরিবারকে সমবেদনা জানাতে এবং প্রশাসনিক তদন্তের অগ্রগতি তদারকি করতে তিনি ঘটনাস্থলে এসেছেন। এসময় তিনি নিহতের পরিবারের হাতে নগদ ৫০ হাজার টাকা অনুদান তুলে দেন।

এসময় তার সঙ্গে উপস্থিত স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস বলেন, দেশি-বিদেশি চক্রান্তের অংশ হিসেবে এসব হত্যাকাণ্ড চালাচ্ছে সরকার বিরোধীরা। তারা হত্যাকাণ্ড করে অস্থিতিশীল পরিস্থিতির মাধ্যমে দেশকে অকার্যকর রাষ্ট্র তৈরির চেষ্টা চালাচ্ছে।

নাটোরের জেলা প্রশাসক খলিলুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মুন্সি সাহাবুদ্দিন, নাটোর পৌরসভার মেয়র উমা চৌধুরী জলি, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান, সিংড়া উপজেলা চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম শফি, বড়াইগ্রামের ইউএনও রুহুল আমিন, বনপাড়া পৌর মেয়র জাকির হোসেন, সহকারী পুলিশ সুপার (বড়াইগ্রাম সার্কেল) শফিকুল ইসলাম, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি চিত্তরঞ্জন সাহা, বনপাড়া ধর্মপল্লীর সহ-সভাপতি বেনেডিক্ট গোমেজ, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট শাহজাহান কবির, আওয়ামী লীগ নেতা কাশিনাথ দাস বিশ্বনাথ, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আব্দুল জলিল প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে, প্রতিমন্ত্রীর বিদায়ের পর পরই ঘটনাস্থলে নাটোর সদর আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম শিমুল উপস্থিত হন। তিনিও নিহতের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান এবং তাদের হাতে নগদ ৫০ হাজার টাকার অনুদান তুলে দেন।

নিহতের পরিবারের সদস্যদের শান্তনা দিয়ে তিনি বলেন, হত্যাকারীদের ধরতে পুলিশ কাজ করে যাচ্ছে। খুব শিগগিরই অপরাধীদের শনাক্ত করে বিচারের আওতায় আনা হবে।

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম, অধ্যাপক শামসুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ মর্তুজা আলী বাবলু, দপ্তর সম্পাদক দিলিপ কুমার দাস, যুবলীগ নেতা বাসিরুল রহমান খান এহিয়া চৌধুরী, রুহুল আমিন বিপ্লব প্রমুখ।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button