খেলাধুলা

জয়ের কাছাকাছি অস্ট্রেলিয়া

ঢাকা, ১৮ ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস ২৪):

ব্রিসবেন টেস্টে জয় দেখছে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া। জয়ের জন্য বাকী দু’দিনে পাকিস্তানের প্রয়োজন আরও ৪২০ রান। আর স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার দরকার ৮ উইকেট।
প্রথম ইনিংসে অসিদের ৪২৯ রানের জবাবে ১৪২ রানেই গুটিয়ে যায় পাকিস্তান ইনিংস। এরপর ৫ উইকেটে ২০২ রান তুলে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করে পাকিস্তানের সামনে ৪৯০ রানের বড় লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করে দেয় অসিরা। সেই লক্ষ্যে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করে তৃতীয় দিন শেষে ২ উইকেটে ৭০ রান তুলেছে পাকিস্তান।
৮ উইকেটে ৯৭ রান নিয়ে তৃতীয় দিনের খেলা শুরু করে পাকিস্তান। লক্ষ্য ছিলো বাকী ২ উইকেটে আরও ১৩২ রান যোগ করে অন্তত ফলো-অন এড়ানো। কিন্তু তা সম্ভব হয়নি। মাত্র ১৪২ রানেই পাকিস্তানকে অলআউট করে দেয় অসিরা।
 ৩১ রান নিয়ে শুরু করে ৫৯ রানে অপরাজিত থাকেন পাকিস্তানের উইকেটরক্ষক সরফরাজ আহমেদ। ৮ রান দিয়ে শুরু করে ২১ রানে থামেন মোহাম্মদ আমির। অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে মিচেল স্টার্ক, জশ হ্যাজেলউড ও জ্যাকসন বার্ড ৩টি করে উইকেট নেন।
প্রথম ইনিংসে পাকিস্তান ফলো-অনে পড়লেও তাদের তা না করিয়ে ২৮৭ রানের লিড নিয়ে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করে অস্ট্রেলিয়া। শুরুতে মাত্র ২৪ রানের মধ্যে দুই ওপেনারকে হারালেও, পরবর্তীতে রান তোলার গতি বাড়িয়েছে অসিরা। ওভার প্রতি পাঁচের কিছুটা বেশি রান নিয়ে ৩৯ ওভারে ৫ উইকেটে ২০২ রানে ইনিংস ঘোষণা করে দেয় অস্ট্রেলিয়া। হাফ-সেঞ্চুরি করেছেন উসমান খাজা ও অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। প্রথম ইনিংসে ৪ রান করা খাজা এবার করেন ১০৯ বলে ৭৪ রান। আর প্রথম ইনিংসে ১৩০ রান করা স্মিথ এবার থামেন ৭০ বলে ৬৩ রান করে। এছাড়া পিটার হ্যান্ডসকম্ব ২৬ বলে ৩৫ রান করে অপরাজিত থাকেন। পাকিস্তানের রাহাত আলী ২টি উইকেট নিয়েছেন।
পরে জয়ের ৪৯০ রানের বিশাল টার্গেটে খেলতে ওপেনার আজহার আলীর ব্যাটিং দৃঢ়তায় ২ উইকেটে ৭০ রান তুলে দিন শেষ করেছে পাকিস্তান। ওপেনার সামি আসলাম ১৫ ও তিন নম্বরে নামা বাবর আজম ১৪ রান করে ফিরলেও, ৪১ রানে অপরাজিত আছেন আজহার। তার সঙ্গী ইউনিস খান অপরাজিত শূন্য রানে। অস্ট্রেলিয়ার স্টার্ক ও নাথান লিঁও ১টি করে উইকেট নেন।
সংক্ষিপ্ত স্কোর (তৃতীয় দিন শেষে) :
অস্ট্রেলিয়া : ৪২৯ ও ২০২/৫ ডি, ৩৯ ওভার (খাজা ৭৪, স্মিথ ৬৩, রাহাত ২/৪০)।
পাকিস্তান : ১৪২ ও ৭০/২, ৩৩ ওভার (আজহার ৪১*, আসলাম ১৫, লিঁও ১/১৩)। বাসস
Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button