রাজনীতি

খালেদা জিয়াকে নাসিকে প্রচারে অংশ নিতে দেয়নি ইসি : রিজভী

ঢাকা, ২১ ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস ২৪):

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী অভিযোগ করে বলেছেন, বিএনপি চেযারপারসন বেগম খালেদা জিয়া নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের প্রচারে অংশ নিবেন জেনে নির্বাচন কমিশন ৭২ ঘণ্টার পরিপত্র জারি করে তাকে প্রচারণায় অংশ নিতে দেয়নি।
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী মঙ্গলবার বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করেন।
রিজভী বলেন, জারি করা পরিপত্রে ‘বহিরাগত’ শব্দটি উল্লেখ করে গোটা জাতিকে নির্বাচন কমিশন অপমান করেছে। নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বেগম খালেদা জিয়া অংশ নিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু বহিরাগত প্রচারণার বিষয়ে ৭২ ঘণ্টার পরিপত্র জারি করে সরকার তাকে নির্বাচনী প্রচারে অংশ নিতে দেয়নি। তিনি তো সরকারের কেউ না। তাছাড়া দেশের নাগরিক হিসেবে তিনি যেকোন স্থানে যেতে পারেন। ৭২ ঘণ্টার আগে প্রচারণা বন্ধ এটা অতীতে কখনও দেখিনি। কমিশন ‘বহিরাগত’ শব্দটি ব্যবহার করে সমগ্র জাতিকে অপমান করেছে। এই ‘বহিরাগত’ শব্দ এলো কোত্থেকে? এই শব্দ অরাজনৈতিক ও অসংসদীয়’।
রিজভী বলেন, আগের যেকোন সময় ৪৮ ঘণ্টা আগে সব ধরণের প্রচারণা নিষিদ্ধ ছিল। কিন্তু নাসিক নির্বাচনে যখন বেগম খালেদা জিয়া প্রচারণায় অংশ নিতে পরিকল্পনা করেছেন ঠিক তখনই সরকার ইসিকে দিয়ে এই পরিপত্র জারি করে। গণমাধ্যমের সংবাদের বরাত দিয়ে রিজভী বলেন, ক্ষমতাসীন দলের রাজনৈতিক পৃষ্ঠপোষকতাপ্রাপ্ত তিন শতাধিক সন্ত্রাসী নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন এলাকায় চষে বেড়াচ্ছে। স্থানীয় প্রশাসনের জ্ঞাতসারেই অরাজক পরিস্থিতি সৃষ্টি হওয়ার প্রস্তুতি চলছে। অতীতের মতো সাধারণ ভোটারদের ভয়ভীতি দেখাচ্ছে। অথচ ইসি বলছে নির্বাচনে কোনো ধরণের ছাড় নয়। তারা ভোটারদের ছাড় দিচ্ছে না। সরকারদলীয় লোকদের কেন্দ্র দখলে ছাড় দিচ্ছে।
বিদায় বেলায় ইসিকে নাসিক নির্বাচনের মাধ্যমে কলঙ্ক মোচনের আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, দেশে বেশ কয়েক বছর ধরে মানুষ ভোট দিতে পারছে না। মানুষও কমিশনের উপর আস্থা রাখতে পারছে না। কমিশনের আচরণের কারণে ভোটাররা আস্থা হারাচ্ছে।অন্তত বলবো শেষ বেলায় সুষ্ঠু একটা নির্বাচন দিয়ে কলঙ্ক মোচন করেন।
Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button