আন্তর্জাতিক

বিখ্যাত নারীদের সতীত্ব হারানোর গল্প

ঢাকা, ২৩ ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস ২৪):

ধর্ষণমাত্রই একটা বিভীষিকা। কেবল ধর্ষিতাই জানে এ বিভীষিকার তীব্রতা ও বীভৎসতা। ধর্ষণে যে শারীরিক-মানসিক ধকল যায়, তা কাটিয়ে ওঠা যে কতটা কঠিন, তা কেবল ভুক্তভোগী ও তার পরিবারই জানে। আমরা আর কিছু না পারি, চাইলে অসহায় ধর্ষিতা কিশোরীটির পাশে দাঁড়াতে পারতাম। ধর্ষণের ধকল কাটাতে প্রেরণাদায়ী কোনো গল্প শোনাতে পারতাম। বিশ্বজুড়ে প্রেরণার কত্ত গল্প!

ফুলন দেবী
ফুলন দেবীর কথা মনে আছে? ভারতের উত্তর প্রদেশের এক গণ্ডগ্রামের এ নারী টানা ২৩ দিন গণধর্ষণের শিকার হন। তরুণী বয়সেই তিনি বারবার বলি হন পুরুষের নিষ্ঠুরতার। সেই ফুলনই পরবর্তীকালে দুই দুইবার লোকসভার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। তার জেগে উঠা, প্রতিবাদ, প্রতিরোধ, সংগ্রাম ও উত্থান কাহিনী নিয়ে দেশে-বিদেশে লেখা হয় একাধিক গ্রন্থ। নির্মিত হয় সিনেমা।নাম যার ‘বেন্ডিত কুইন’।

উইনফ্রে
বিশ্ববিখ্যাত টকশো উপস্থাপক উইনফ্রের কথা। মাত্র ৯ বছর বয়সে তিনি ধর্ষিত হন। ধর্ষক নিজের মামাত ভাই। সেই উইনফ্রেই পরে হয়ে উঠলেন বিংশ শতাব্দীর সবচেয়ে ধনী আফ্রো-আমেরিকান, উত্তর আমেরিকার প্রথম এবং একমাত্র মাল্টি-বিলিয়নিয়ার কৃষ্ণাঙ্গ। জিতলেন আমেরিকার সর্বোচ্চ বেসামরিক পুরস্কার ‘প্রেসিডেন্সিয়াল মেডেল অব ফ্রিডম’। বিভিন্ন জরিপে হলেন পৃথিবীর সবচেয়ে প্রভাবশালী নারী (উইকিপিডিয়া)।

ম্যাডোনা
বিশ্বখ্যাত পপগায়িকা ম্যাডোনা। ১৯ বছর বয়সে তিনি ধর্ষণের শিকার হন। আরেক পপগায়িকা লেডি গাগাও একই বয়সে এক ক্যাসেট কোম্পানির মালিকের হাতে ধর্ষিত হন। পরে ওই ঘটনা নিয়ে ‘ঝরিহব’ নামে একটি গানও গান।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button