রাজনীতি

রাষ্ট্রপতি যেভাবে কমিশন গঠন করবেন তা মেনে নেবে আওয়ামী লীগ’: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ঢাকা, ২৯ ডিসেম্বর , (ডেইলি টাইমস ২৪):

গতকাল বিকালে বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ) অডিটরিয়ামে স্বাধীনতা চিকিত্সক পরিষদের (স্বাচিব) ২৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেন, রাষ্ট্রপতি সংবিধান অনুযায়ী যেভাবে নির্বাচন কমিশন গঠন করবে, আওয়ামী লীগ সেভাবে মেনে নেবে। তিনি বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকার নিয়ে আর কোনো আলোচনা নেই। সেটিকে আপনারাই (বিএনপি) বিতর্কিত করে গেছেন। আর সংবিধানেই লেখা আছে জনগণের মাধ্যমে নির্বাচিত সরকারের অধিনেই নির্বাচন পরিচালিত হবে এবং রাষ্ট্রপতি নির্বাচন কমিশন গঠন করবেন।

বিএনপির নির্বাচন থেকে সরে যাওয়া প্রসঙ্গে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, বাংলাদেশের রাজনীতির এমন অবস্থা হয়েছে যে, একটি দল নির্বাচন থেকে পালিয়ে যায়। কিছুদিন আগে বিএমএ নির্বাচনেও দেখলাম সে কাজটি করেছে তারা। এই পালিয়ে যাওয়ার রাজনীতি ছেড়ে দিতে হবে। জয়-পরাজয় তো থাকবেই। জেলা পরিষদ নির্বাচন প্রসঙ্গে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘জেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় বিস্তর জায়গা নিয়ে। যদি জনগণের ভোটের    মাধ্যমে এ নির্বাচন করা হতো, তাহলে কত খরচ হতো আপনাদের ধারণা আছে? কত সময় লাগত? আর সে অজুহাত দেখিয়ে তারা (বিএনপি) নির্বাচনে অংশ নেয়নি।’ স্বাচিপ সভাপতি অধ্যাপক   ডা. এম ইকবাল আর্সলানের সভাপতিত্ব সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন স্বাচিপ মহাসচিব অধ্যাপক ডা. এম এ আজিজ, বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা, বিএমএ মহাসচিব ডা. মো. ইহতেশামুল হক চৌধুরী প্রমুখ।
‘চিকিত্সক উপস্থিতি নিশ্চিত করতে বিএমএ’র
কমিটিকে তত্পর থাকতে হবে’
আওয়ামী লীগ প্রেসিডিয়াম সদস্য, কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র এবং স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে স্বাস্থ্য খাতে বাংলাদেশের অর্জনকে আরো এগিয়ে নিতে সহায়তা করার জন্য বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ)-এর নির্বাচিত কমিটির প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, দেশের দরিদ্র মানুষ যেন সহজে বিনামূল্যে চিকিত্সা সেবা পায় সে লক্ষ্যে উপজেলা ও ইউনিয়ন থেকে শুরু করে সকল স্তরের হাসপাতালে চিকিত্সকদের নিয়মিত উপস্থিতি নিশ্চিত করতে বিএমএ’র নবনির্বাচিত কমিটিকে তত্পর থাকতে হবে। গতকাল বুধবার সকালে বিএমএ’র নবনির্বাচিত কমিটির এক প্রতিনিধি দল রাজধানীতে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর বাসভবনে মন্ত্রীর সাথে সৌজন্য সাক্ষাত্ করতে আসলে তিনি এই আহ্বান জানান। বিএমএ’র নতুন সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন ও মহাসচিব অধ্যাপক ডা. এহতেশামুল হক চৌধুরী প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন। গত ১২ ডিসেম্বর সারা দেশে একযোগে নির্বাচনের মাধ্যমে নতুন কমিটি নির্বাচিত হয়।
স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, নির্বাচন বর্জন করা বিএনপির অভ্যাস হয়ে দাঁড়িয়েছে। তিনি বলেন, খালেদা জিয়া বলছেন নারায়ণগঞ্জের নির্বাচন সঠিকভাবে হয়নি। নির্বাচনে পরাজিত হবার পরে এমন মন্তব্য করায় তাদের সাথে কথা বলতেই ইচ্ছা করে না। তাদের যে এই মানসিকতা  সেটি সবসময় পরিত্যাজ্য। নির্বাচিত কমিটিকে অভিনন্দন জানিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, শিশু মৃত্যুর হার কমিয়ে এমডিজি অর্জনসহ পোলিও ও ধনুষ্টংকার নির্মূল করে বাংলাদেশ সাম্প্রতিক সময়ে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রশংসিত হয়েছে। আমাদের ১৩ হাজারের অধিক কমিউনিটি ক্লিনিক গ্রাম পর্যায়ে সেবা দিয়ে তৃণমূল মানুষের স্বাস্থ্য মান উন্নয়নে যে অবদান রেখে চলেছে তাকে বিশ্ব নেতৃবৃন্দ উন্নয়নশীল দেশের জন্য রোল মডেল হিসাবে স্বীকৃতি দিয়েছে।
বেসরকারি মেডিক্যালে এমবিবিএসে ভর্তির সময়সীমা ৮ জানুয়ারি পর্যন্ত বর্ধিত
বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজে এমবিবিএস ও বিডিএস কোর্সে ভর্তির সময়সীমা আগামী ৮ জানুয়ারি পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়েছে। এর আগে এই সময়সীমা ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত নির্ধারিত ছিল। গতকাল সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজ নীতিমালা সংক্রান্ত সভায় এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।
আন্তর্জাতিক মানের ক্যান্সার হাসপাতাল নির্মাণে চীনের সাথে এমওইউ স্বাক্ষর
এ দিকে চীনের আর্থিক সহায়তায় ঢাকায় স্থাপিত হতে যাচ্ছে ১০০০ শয্যার অত্যাধুনিক ক্যান্সার হাসপাতাল। গতকাল সচিবালয়ে এ সংক্রান্ত একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। এতে স্বাক্ষর করেন বাংলাদেশের পক্ষে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ সিরাজুল ইসলাম এবং চীনের পক্ষে সিআরসিসিআই-এর বাংলাদেশ প্রতিনিধি ইয়াং ঝি। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম, স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেকসহ মন্ত্রণালয় ও সিআরসিসিআই-এর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button