আন্তর্জাতিক

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর মেয়ের অর্ধনগ্ন ভিডিও ফাঁস?

ঢাকা, ২৩ জানুয়ারি , (ডেইলি টাইমস ২৪):

পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ কন্যা মারিয়ম নওয়াজের ভিডিও ভাইরাল হল ইন্টারেনেটেl ওই ভিডিওতে মারিয়মকে অর্ধনগ্ন অবস্থায় দেখা যাচ্ছেl ওই ভিডিওতে পাক প্রধানমন্ত্রীর মেয়েকে পোশাক বদলাতেও দেখা গেছে।
যদিও, ওই ভিডিওতে যাঁকে দেখা যাচ্ছে, তাঁর মুখ স্পষ্ট নয়l তাই মেয়েটি পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রীর মেয়ে কি না, সে বিষয়ে যথেষ্ঠ সন্দেহ রয়েছেl কিন্তু, ওই ভিডিওটি ইন্টারনেটে প্রকাশ হওয়ার পর পরই তা ভাইরাল হয়ে যায়l ভিডিওটি নিয়ে সন্দিহান অনেকেই।
নওয়াজ শরিফের কন্যা মারিয়ম নওয়াজ একজন রাজনৈতিক কর্মী এবং সমাজকর্মী। রাজনৈতিক কারণে তাঁকে নিয়ে নানা মহলে আলোচনা তো চলেই, তবে তিনি আরও বেশি আলোচিত হন তাঁর সৌন্দর্যের কারণে। বর্তমানে ৪৩ বছর বয়সি মারিয়ম অসামান্য রূপসী। সম্প্রতি সেই মারিয়মের নামেই প্রচারিত একটি এমএমএস ভিডিও তোলপাড় তুলেছে ইন্টারনেট দুনিয়ায়।
কী রয়েছে এই ভিডিওতে? ভিডিও-র শুরতেই জানিয়ে দেওয়া হচ্ছে, এটি নওয়াজ শরিফের কন্যার লিক হওয়া এমএমএস। তার পর একটি ঘরের ভিতরে দেখা যাচ্ছে একটি মেয়েকে। সেই মেয়ের মুখ স্পষ্ট নয়। যে কালো পোশাকটি পরে রয়েছে মেয়েটি, তাতে তার শরীরের অনেকটা অংশই উন্মুক্ত হয়ে রয়েছে। এর পর মেয়েটি সেই পোশাক খোলা শুরু করতেই স্ক্রিনে ভেসে উঠছে বার্তা- ‘পরবর্তী ৩০ সেকেন্ড দেখানো সম্ভব নয়। ’ আবার যখন দেখা যাচ্ছে মেয়েটিকে, তখন সে পোশাক বদলে একটি নীলচে কামিজ পরেছে। বোঝা যাচ্ছে, মেয়েটি এই তিরিশ সেকেন্ডে পোশাক খুলে সম্পূর্ণ নগ্ন হয়ে তার পর কামিজটি পরেছে। মেয়ের পরণে কামিজ, কিন্তু তলায় সালোয়ারটি নেই। সেই অবস্থাতেই লাস্যময়ী ভঙ্গিতে ক্যামেরার সামনে নেচে চলেছে মেয়েটি।
ইউটিউবসহ বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় আপলোড হওয়া এই ভিডিও-ও দাবি করা হচ্ছে, ক্যামেরার সামনে যে মেয়েটিকে দেখা যাচ্ছে, সে আসলে নওয়াজ-কন্যা মারিয়ম। এই দাবির সত্যাসত্য বিচার করা কঠিন, কারণ ভিডিও-র মেয়েটির মুখ কখনওই খুব স্পষ্ট ভাবে দেখা যাচ্ছে না। তবে যেটুকু টের পাওয়া যাচ্ছে মেয়েটির মুখের আদল, তাতে এই মেয়ে মারিয়ম না হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি।
কিন্তু তাতে কী যায় আসে? পাক সেনাকর্মী মুহম্মদ সফদর আওয়ান-এর ঘরণি এবং পাক প্রধানমন্ত্রীর কন্যা মারিয়মের নামেই নেট দুনিয়ায় ভাইরাল হয়েছে এই ভিডিও। মোবাইল থেকে মোবাইলে এমএমএস আকারে ছড়িয়ে পড়ছে ভিডিও-টি। পাকিস্তানি মিডিয়ার একাংশ অবশ্য গোটা বিষয়টিকেই ভারতের ষড়যন্ত্র বলে দাবি করছে। বলা হচ্ছে, ভিডিও-র মেয়েটি আদৌ মারিয়ম নয়, এবং ভারতেরই কিছু নেটিজেন পাক প্রধানমন্ত্রী এবং তাঁর মেয়েকে বদনাম করার জন্য এই ভিডিও প্রচার করেছে। কার দাবি যে সত্য, তা এই মুহূর্তে বুঝে ওঠা কঠিন। তবে আপাতত মারিয়মের নামেই প্রচার পাচ্ছে ভিডিওটি।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button