আন্তর্জাতিক

যুক্তরাষ্ট্রকে মুখ সামলে কথা বলতে চীনের হুঁশিয়ারি

ঢাকা, ২৪ জানুয়ারি , (ডেইলি টাইমস ২৪):

দক্ষিণ চীন সাগর এলাকার কর্তৃত্ব অর্জন করতে চীনের চেষ্টা ভণ্ডুল করে দেয়ার ঘোষণা দেয়ায় যুক্তরাষ্ট্রকে ‘মুখ সামলে কথা বলতে এবং বুঝেশুনে কাজ করতে’ বলেছে বেইজিং।

মঙ্গলবার বেইজিংয়ে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে ওয়াশিংটনকে এ হুঁশিয়ারির কথা জানান চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র হুয়া চুনইং। খবর দ্য গার্ডিয়ান ও এএফপির।

দক্ষিণ চীন সাগর এলাকার শান্তি এবং স্থিতিশীলতা বিনষ্ট করা থেকে বিরত থাকার জন্য যুক্তরাষ্ট্রকে সতর্কতার সঙ্গে ‘লাফালাফি’ করতে বলেন তিনি।

এর আগে সোমবার এক ব্রিফিংয়ে দক্ষিণ চীন সাগর এলাকায় মার্কিন স্বার্থ রক্ষার বিষয়টি আমরা নিশ্চিত করব বলে মন্তব্য করেছিলেন হোয়াইট হাউজের নতুন প্রেসসচিব সিন স্পাইসার।

তিনি বলেন, দক্ষিণ চীন সাগর এলাকার দ্বীপগুলো আন্তর্জাতিক নৌসীমায় অবস্থিত কি না এবং এগুলো সত্যিই চীনের অংশ কি না তা আমরা প্রথমে দেখব। হ্যাঁ, এরপর আমরা নিশ্চিত করব যে কোনো আন্তর্জাতিক এলাকাকে কোনো একক দেশের দখলদারি থেকে রক্ষা করব।

কী ধরনের পদক্ষেপ নেয়া হবে সাংবাদিকরা তা জানতে চাইলে বিস্তারিত কিছু বলতে রাজি হননি স্পাইসার। তিনি বলেন, এ ব্যাপারে আরও অগ্রসর হলে আপনাদের আরও তথ্য জানানো হবে।

এদিকে স্পাইসারের এমন বক্তব্যের ব্যাপারে মঙ্গলবার বেইজিংয়ে অনুষ্ঠিত নিয়মিত সংবাদ সম্মেলনে কড়া প্রতিক্রিয়া জানান হুয়া চুনইং।

তিনি বলেন, দক্ষিণ চীন সাগরের দ্বীপসমূহ এবং এর সংলগ্ন নৌসীমায় চীনের সার্বভৌমত্ব অবিসংবাদিত। আর চীন অত্যন্ত কঠোরভাবে নিজের অধিকার এবং স্বার্থ রক্ষা করে থাকে।

দক্ষিণ চীন সাগর ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র কোনো পক্ষ নয় বলেও মন্তব্য করেন চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র হুয়া চুনইং।

উল্লেখ্য, গত সপ্তাহে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প মনোনীত মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন বলেছিলেন, দক্ষিণ চীন সাগরের দ্বীপগুলোতে চীনের প্রবেশ আটকে দেয়া হবে। এক্ষেত্রে সামরিক সংঘাতের সম্ভাবনা রয়েছে বলেও জানান তিনি।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button