জেলার সংবাদ

সিলেটে মেয়েসহ ধর্ষিত গৃহবধূকে তালাক!

ঢাকা,১৪ মে, (ডেইলি টাইমস ২৪):

সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলায় মেয়েসহ ধর্ষণের শিকার গৃহবধূকে তালাক দিয়েছেন তার স্বামী! এমন দাবি করা হয়েছে ধর্ষিতার ছেলের করা মামলার এজাহারে।

এতে উল্লেখ করা হয়েছে, তার মাকে ৩ মে তালাক দিয়েছেন তার বাবা। জৈন্তাপুর থানায় করা মামলায় ধর্ষণ ছাড়াও পর্নোগ্রাফি আইনে অভিযোগ আনা হয়েছে বখাটে যুবক নিমার আলীর বিরুদ্ধে। এমন তথ্য দিয়েছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আনোয়ার জাহিদ।

স্থানীয় দরবস্ত ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বাহারুল আলম বাহার জানান, মা ও মেয়ের সঙ্গে দৈহিক সম্পর্কের ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়ার পর পুরো উপজেলায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়। একপর্যায়ে দিনমজুর স্বামী তার স্ত্রীকে তালাক দেন। তবে মৌখিক তালাক দিলেও ইউনিয়ন পরিষদকে তিনি লিখিতভাবে কিছুই জানাননি। এ ব্যাপারে বক্তব্য জানতে গৃহবধূর রিকশাচালক স্বামীর সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

এদিকে মা ও মেয়ে ধর্ষণের ঘটনার নিন্দা জানিয়ে সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে দায়ীদের চিহ্নিত করে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা।

তাদের মধ্যে রয়েছেন ব্লাস্ট সিলেট ইউনিটের কো-অর্ডিনেটর অ্যাডভোকেট ইরফানুজ্জামান চৌধুরী, মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থার সিলেট জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক শাহীন আহমদ খান ও মহিলা পরিষদ সিলেট শাখার সাধারণ সম্পাদক রওশন আরা মুকুল।

শুক্রবার ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত নিমার আলী ও ভিকটিম মা-মেয়ের জবানবন্দি রেকর্ড করেছেন আদালত। ধর্ষক নিমার দরবস্ত ইউনিয়নের লামাডেমা গ্রামের অধিবাসী।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button