জাতীয়

রেলের ৩ হাজার ৭৫২ একর জমি অবৈধ দখলে

ঢাকা, ১৪ জুন, (ডেইলি টাইমস ২৪):

বাংলাদেশ রেলওয়ের ৩ হাজার ৭৫২ একর জমি অবৈধ দখলে আছে বলে জানিয়েছেন রেলপথমন্ত্রী মুজিবুল হক।

বুধবার জাতীয় সংসদে সংসদ সদস্য সুকুমার রঞ্জন ঘোষের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব তথ্য জানান।

মন্ত্রী বলেন, স্থানীয় প্রশাসন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষকারী বাহিনী ও রেলওয়ের অন্যান্য বিভাগের সার্বিক সহযোগিতায় পর্যায়ক্রমে অবৈধভাবে দখল করা ভূমি দখলমুক্ত করা হচ্ছে।

সংসদ সদস্য নুরুল ইসলাম সুজনের অপর এক প্রশ্নের জবাবে রেলপথমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ রেলওয়ের অব্যবহৃত ভূমির পরিমাণ ১০ হাজার ৮৪৩ দশমিক ১৫ একর। রেলওয়ের অব্যবহৃত জমিতে পিপিপির আওতায় আধুনিক হাসপাতাল ও মেডিক্যাল কলেজ, আন্তর্জাতিক মানের ৫ তারকা হোটেল-কাম-বাণিজ্যিক ভবন, বহুতল বিশিষ্ট শপিং মল-কাম-গেস্ট হাউস ইত্যাদি নির্মাণের লক্ষ্যে প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে।’

জাতীয় পার্টির পীর ফজলুর রহমানের এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, সকল জেলা রেলের আওতায় আনতে বাংলাদেশ রেলওয়ে পদক্ষেপ গ্রহণ করে যাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় সুনামগঞ্জ জেলা সদরকে রেলওয়ে নেটওয়ার্কের সঙ্গে যুক্ত করার জন্য বাংলাদেশ রেলওয়ে ‘সুনামগঞ্জ জেলা সদরে রেলওয়ে সংযোগের জন্য সম্ভাব্যতা সমীক্ষা’ শীর্ষক প্রকল্প প্রস্তাব প্রণয়ন করা হয়েছে। এটি এখন অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে।

তিনি বলেন, ‘কোরিয়া ইন্টারন্যাশনাল কো-অপারেশন এজেন্সি (কেওআইসিএ)’র ২০১৮ সালের অনুদান সহায়তা প্রাপ্তির লক্ষ্যে প্রকল্পের ‘প্রজেক্ট কনসেপ্ট পেপার’ প্রণয়ন করে গত ২০১৬ সালের ১৮ ডিসেম্বরে রেলপথ মন্ত্রণালয় থেকে ইআরডিতে এবং ইআরডি থেকে গত ২০১৭ সালের ১৮ জানুয়ারিতে কেওআইসিএ-তে প্রেরণ করা হয়। সমীক্ষা প্রতিবেদনের ভিত্তিতে প্রকল্প কারিগরি, পরিবেশগত, সামাজিক ও আর্থিকভাবে বাস্তবায়নযোগ্য ‘ভায়েবল’ বিবেচিত হলে প্রকল্পটি বাস্তবায়নের জন্য কার্যক্রম গ্রহণ করা হবে।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button