রাজনীতি

শুরু থেকেই রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিলে প্রাণহানি কম হতো

ঢাকা, ২৪ সেপ্টেম্বর,(ডেইলি টাইমস ২৪):

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, সরকার শুরু থেকেই রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিলে প্রাণহানি কম হতো । কিন্তু সরকারের কঠোর মনোভাবের কারণে রোহিঙ্গারা আজকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসার পরও মানবেতর জীবনযাপন করছেন।

শনিবার কক্সবাজারের উখিয়ার বিভিন্ন রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরে ত্রাণ বিতরণকালে তিনি এ সব কথা বলেন।

গৃহচ্যুত ও দেশচ্যুত মানুষগুলো আজকে খোলা আকাশের নিচে ঠাঁই নিয়েছে। তাদের অবস্থা খুবই নাজুক। কোনো বিবেকবান মানুষের পক্ষে তাদের কষ্ট সহ্য হওয়ার কথা নয়। এমতাবস্থায় সমাজের সামর্থ্যবান সবাইকে রোহিঙ্গাদের জন্য ত্রাণ নিয়ে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান রুহুল কবির রিজভী।

এ সময় কক্সবাজার জেলা বিএনপির সভাপতি শাহজাহান চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক শামীম আরা স্বপ্না, উখিয়া উপজেলা বিএনপির সভাপতি সরোয়ার জাহান চৌধুরী, মাদারীপুরের শিবচর উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইয়াজ্জেম হোসেন রোমান, মুক্তিযোদ্ধা দলের মনিরুল ইসলাম ইউসুফ ও কক্সবাজার জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রাশেদুল হক রাসেল উপস্থিত ছিলেন।

উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্পে মাদারীপুরের শিবচর উপজেলা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইয়াজ্জেম হোসেন রোমানের উদ্যোগে রোহিঙ্গাদের জন্য ত্রাণ বিতরণের আয়োজন করা হয়। সেখানে কয়েক হাজার রোহিঙ্গা শরণার্থীর মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন রুহুল কবির রিজভী।

ত্রাণ বিতরণকালে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, রোহিঙ্গাদের ব্যাপারে বাংলাদেশ সরকার যদি শুরু থেকেই দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতো, তাহলে তাদের এতগুলো মানুষের প্রাণহানি হতো না। সরকারের প্রথম দিকে জোরালো ভূমিকা ছিল না।

তিনি বলেন, এখন দেখছি সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে রোহিঙ্গাদের সহযোগিতার জন্য। দেখা যাক কী হয়? তবে এখন থেকে আরো সুশৃঙ্খলভাবে ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম হবে বলে প্রত্যাশা করেন তিনি।

এখন পর্যন্ত যেসব রাজনৈতিক দল বা সামাজিক ও পেশাজীবী সংগঠন রোহিঙ্গাদেরকে ত্রাণ সহায়তা দিয়েছেন
তাদেরকে ধন্যবাদ জানিয়ে রিজভী বলেন, নির্যাতিত রোহিঙ্গাদের সহায়তার জন্য মানবিক দিক বিবেচনা করে সমাজের বিত্তবান মানুষদেরকে এগিয়ে আসা জরুরি।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button