রাজনীতি

সমঝোতায় না আসলে গণবিস্ফোরণ : মওদুদ

ঢাকা, ০৩ নভেম্বর, (ডেইলি টাইমস ২৪):

নির্বাচনকালীন সরকার ব‌্যবস্থা নিয়ে আলোচনায় আসতে সরকারকে বাধ‌্য করা হবে বলে জানিয়ে বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ বলেছেন সমঝোতায় না আসলে গণবিস্ফোরণ হবে।

‘সরকারকে সমঝোতায় আসতেই হবে’ বলে দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব‌্যের একদিনের মধ‌্যে বিএনপির আরেক প্রবীণ নেতার কাছ থেকে একই ধরনের বক্তব‌্য এলো।

শুক্রবার রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক অনুষ্ঠানে নির্বাচনকালীর সরকার নিয়ে কথা বলতে গিয়ে ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ বলেন, ‘নির্বাচনের আগে সরকার সংলাপ সমঝোতা করতে বাধ্য হবে। কারণ বাংলাদেশে আগামী নির্বাচন বিএনপিবিহীন হবে না। যে কোনো প্রতিকূল অবস্থায় আমরা নির্বাচনে অংশ নেবো। তার আগে আমরা যখন বিভিন্ন কর্মসূচি দেবো সেখানে যে গণজোয়ার হবে, সেটি দেখে সরকার সমঝোতায় আসতে বাধ্য হবে।’

‘এই নির্বাচনে গণজোয়ার হবে। সরকার সমঝোতায় না আসলে বাংলাদেশের মাটিতে গণবিস্ফোরণ হবে। কারণ এই সরকারের অত্যাচার মানুষের সহ্যের সীমা ছাড়িয়ে গেছে’, বলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস‌্য।

ফেনীতে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে এই সভার আয়োজন করে ‘স্বাধীনতা ফোরাম’ নামের একটি সংগঠন।

মওদুদ আহমেদ বলেন, ‘মানুষের এখন অন্য কোনো আশ্রয় নেই, পথ নেই। দশ বছর ক্ষমতায় থেকে আওয়ামী লীগ প্রমাণ করেছে তারা একটি সন্ত্রাসী রাজনৈতিক দল। এই সরকারের নিকট থেকে জনগণ একটা কথাই শিখছে, তা হলো মিথ্যা বলতে হবে। সদা সর্বদা মিথ্যা কথা বলিবে।’

কক্সবাজারে আসা-যাওয়ার পথে বিএনপি চেয়ারপারসনের গাড়িতে হামলা নিয়ে সরকার মিথ‌্যাচার করছে অভিযোগ করে তিনি বলেন, ‘তার (খালেদা জিয়া) গাড়িবহরে হামলা কারা করেছে, কে করেছে বাংলাদেশের মানুষ সবাই জানে। এমনকি যারা এই হামলাকে অস্বীকার করছে তারাও জানে, এটা ছাত্রলীগ এবং যুবলীগের সন্ত্রাসীরা করেছে। কিন্তু মিথ্যার আশ্রয় নিয়ে লজ্জাজনকভাবে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে বিএনপি নেতা-কর্মীদেরকে।’

তিনি বলেন, ‘গণমাধ্যম কর্মীদের ওপর সরকার ইচ্ছাকৃতভাবে আক্রমণ করেছে। কারণ তারা গণমাধ্যম, সংবাদপত্র এবং দেশের মানুষের স্বাধীনতায় কখনও বিশ্বাস করে না। সেই কারণেই শুধু গাড়িবহরে নয়, গণমাধ্যমের ওপর আক্রমণ করেছে ছাত্রলীগ, যুবলীগ।’

হামলা করে বিএনপির অগ্রযাত্রা বন্ধ করা যাবে না বলেও সরকার উদ্দেশ‌্য করে মন্তব‌্য করেন দলটির এই নীতি নির্ধারক।

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি আবু নাসের মো. রহমত উল্লাহর সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য দেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আব্দুস সালাম, হাবিবুর রহমান হাবিব, বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, এলডিপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম প্রমুখ।

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button