জেলার সংবাদ

বাউফলে জাসাস কেন্দ্রীয় নেতাকে অবরুদ্ধ করে নির্যাতন

ঢাকা , ২২ মে, (ডেইলি টাইমস২৪):  জাতীয়তাবাদী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংস্থা জাসাস কেন্দ্রীয় নেতা হাজী মোঃ আব্দুল কাইয়ুম গতকাল  বৃহস্পতিবার রাত পৌনে এগারোটায় তার নিজ এলাকয় তৃতীয় দফায় তেতুলিয়া পারের ভানবাসী মানুষের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারুণ্যের অহংকার তারেক রহমানের নির্দেশে ত্রাণ বিতরণের প্রস্তুতি সভা শেষ করেন।
রাত ১১.৩০টা থেকে তিন ঘণ্টা অবরুদ্ধ করে অমানবিক বর্বরোচিত শারীরিক ও মানষিক নির্যাতনের স্বীকার হন।
স্থানীয় ৪নং ওয়ার্ড যুবদল সভাপতি মনির খান ও কেশবপুর ইউনিয়ন যুবনেতা জিয়াউল হক জিয়া খুব সকালে এলাকার একটি খুপরে ঘর থেকে আশংকাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে তাৎক্ষণিক হাসপাতালে নিয়ে যান। তবে এখন তিনি আশংকামুক্ত নিরাপত্তার অভাবে অজ্ঞাত স্থানে চিকিৎসা সেবা নিচ্ছেন।
বিস্তারিত জানতে চাইলে নিরাপত্তার সার্থে বলতে অপারগতা প্রকাশ করেন। তিনি বিএনপি চেয়ারপারসন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান এর নির্দেশে জণগনের পাশে দাঁড়ানোর অঙ্গীকার করেন।
উল্যেখ্য এই জাসাস কেন্দ্রীয় নেতা গত ১৫.৫.২০২০, শুক্রবার দলের নির্দেশে বাউফল উপজেলার কৃতি সন্তান বিএনপির প্রভাবশালী কেন্দ্রীয় নেতা জাতীয় নির্বাহী কমিটির সহ দফতর সম্পাদক মুহম্মদ মুনির হোসেন এর পক্ষ থেকে মেঘনার শাখা নদী তেতুলিয়া পারের ৪৫০ পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন। রুহুল কবির রিজভী আহমেদ, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, বিলকিস জাহান শিরিন তাকে সাধুবাদ জানান। ত্রাণ বিতরণ অনুষ্ঠানটি দৈনিক দিনকাল সহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার বহুল প্রচারিত হয়।
থানীয় বাসিন্দাদের ধারণা তার ত্রাণ বিরণের রেষে এলাকার প্রতিপত্তি মহলের গাত্রদাহ থেকে এ অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটতে পারে।
আবার বিজ্ঞমহল ৮ ফেব্রুয়ারী এই কেন্দ্রীয় নেতার গুম হওয়ার সাথে যোগসূত্র খুজছেন। তিনি প্রতিহিংসার রাজনীতি করবেন না। দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন।

ঢাকা , ২২ মে, (ডেইলি টাইমস২৪)/আর এ কে

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button
Close