রাজনীতি

পাটকল বন্ধের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের দাবি এলডিপি’র

ঢাকা ,০২জুলাই,(ডেইলি টাইমস২৪): রাষ্ট্রীয় সম্পদ দখল ও লুট করে নিজেদের পকেটে ভরে বিদেশে পাচারের যে আয়োজন, তা পাটকলের শ্রমিকরা মানবে না। পাটকল বন্ধের সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে কথিত গোল্ডেন হ্যান্ডশেক প্রক্রিয়ায় শ্রমিক বিদায়ের ঘোষণা বাতিলের দাবি জানিয়েছেন ২০ দলীয় জোট শরিক লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টি-এলডিপি সভাপতি আবদুল করিম আব্বাসী ও মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম।

বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) পাটকল বন্ধ ও শ্রমিক ছাঁটাই ঘোষণার প্রতিবাদে গণমাধ্যমে প্রেরিত এক বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় এ আহ্বান জানান।

তারা বলেন, করোনাকালে রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকল বন্ধ করে ৫০ হাজার শ্রমিককে কর্মহীন করা এবং লক্ষাধিক মানুষকে নতুন করে দারিদ্র্যের মধ্যে ঠেলে দেয়া এই সরকারের চরম নিষ্ঠুরতার বহিঃপ্রকাশ। একদিকে ৮-১০ লাখ পোশাক শ্রমিক চাকরি হারানোর শঙ্কায় আছে, প্রায় ৩ কোটি লোক নতুন করে দারিদ্র্যসীমায় নেমে এসেছে, তখন পাটকল শ্রমিক ও ওই অঞ্চলের মানুষদের অনিশ্চয়তার মধ্যে ঠেলে দেয়া কোনোভাবেই সহ্য করা যায় না।

নেতৃদ্বয় বলেন, পাটমন্ত্রী লোকসানের কথা বলে, শ্রমিকদের ওপর তার দায় চাপিয়ে দেশবাসীকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন। অথচ লোকসানের জন্য দায়ী বিজেএমসি নামক মাথাভারী প্রশাসন, যারা পাট ক্রয়ে দুর্নীতি, মৌসুমে পাট সরবরাহে অনিয়ম, অসময়ে বেশি দামে পাট ক্রয় এবং উৎপাদিত পাটপণ্য বিপণনে ব্যর্থতা দেখিয়েছে তাদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি।

তারা বলেন, লোকশানের প্রধান কারণ শ্রমিক নয়, কারন হচ্ছে দুর্নীতি, কারখানাগুলো আধুনিকায়ন না করা, উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি না হওয়া। সেটার সমাধান না করে কারখানা বন্ধ না করা কোনো সমাধান নয়। সরকার কি আমলাতন্ত্রের দুর্নীতি বন্ধ করতে পেরেছে? প্রতিটি নিয়োগে, প্রতিটি বদলিতে, প্রতিটি পদোন্নতিতে যে দুর্নীতি হয় তা কি বন্ধ করতে পেরেছে? তাহলে তো সরকাকেই বন্ধ করে দিতে হয়। সুতরাং দুর্নীতির দোহাই দিয়ে সব দায় শ্রমিকের ওপর চাপানো চলবে না।

ঢাকা ,০২জুলাই,(ডেইলি টাইমস২৪)/আর এ কে

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button
Close