জাতীয়প্রধান সংবাদ

ঈদের দিনে বন্যাদুর্গতের মাঝে `আমরাই কিংবদন্তী’র খাবার, মাস্ক ও খাসির গোশত বিতরণ

ঢাকা , ০২ আগস্ট,(ডেইলি টাইমস২৪): আমরাই কিংবদন্তী (এসএসসি ২০০০ এবং এইচএসসি ২০০২)একটি অনলাইন ভিত্তিক ফেসবুক গ্রুপ, যেখানে সারা বাংলাদেশের এসএসসি২০০০ এবং এইচএসসি২০০২ সালের ছাত্র-ছাত্রীদের একত্র করে একক প্লাটফর্মে আনার চেষ্টা চলছে।
আমরাই কিংবদন্তী গ্রুপ এর একদল স্বেচ্ছাসেবী আজ ১ আগস্ট ২০২০ পবিত্র ঈদ-ঊল-আজহা’র দিনে মানিকগঞ্জের সাটুরিয়াস্থ সোলাই গোবিন্দপুর, পাচুটিয়া ও তিল্লী এলাকায় প্রায় ছয় শতাধিক মানুষকে খাবার, মাস্ক, খাবার স্যালাইন ছাড়াও কিছু বিশেষ পরিবারের মাঝে খাসির গোশত বিতরণ করে, পানিবন্ধী অসহায় মানুষের সাথে ঈদ আনন্দ কে ভাগাভাগি করার লক্ষ্যে।
দেশের ও বিশ্বের চলমান করোনা’র (কোভিক ১৯) ভয়াবহ পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়ে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর প্রয়াস থেকে “ক্ষুদ্র প্রয়াসে পাশে আছি” এই স্লোগানকে সামনে রেখে গত ঈদ-ঊল-ফিতরের দিন থেকে শুরু করে খাবার বিতরণ কার্যক্রমটি চলমান আছে। যা বর্তমানে শুক্রবার করে চলমান থাকলেও, ভবিষ্যতে প্রতিদিন করার পরিকল্পনা করছে গ্রুপের নিবেদিত প্রাণ সদস্যরা।
ঈদের আনন্দ বানভাসি মানুষের সাথে সম্মিলিত ভাবে ভাগাভাগি করার প্রয়াস থেকেই ৩২ হাজার সদস্য এর পরিবার উদ্যোগী হয়ে এই কার্যক্রম হাতে নেয়া হয়।


গ্রুপ এর স্বেচ্ছাসেবী দলটি দুপুর ২ টায় মানিকগঞ্জের সাটুরিয়াস্থ সোলাই গোবিন্দপুর থেকে বিতরণ কার্যক্রম শুরু করে, পরবর্তীতে বিতরণ কার্যক্রম পাচুটিয়া ও তিল্লী এলাকায় গিয়ে শেষ হয়।
এসময় প্রায় ছয় শতাধিক পানিবন্ধী মানুষের মাঝে মোরগ-পোলাও ও জর্দা, মাস্ক এবং খাবার স্যালাইন বিতরণ করা হয়। একই সঙ্গে বিশেষ কিছু পরিবারের মাঝে কোরবানীকৃত খাসির গোশত বিতরণ করা হয়।
এখানে উল্লেখ্য, “মানবতার কল্যাণে কিংবদন্তী সবখানে” এই মূলনীতিতে এগিয়ে চলা গ্রুপটি করোনার প্রাথমিক পর্যায় বিভিন্ন জনসেচনতা ও সেবামূলক কাজে নিজেদের নিয়োজিত রেখেছে।
উল্লেখ্য যে, ১৫ নভেম্বর ২০১৭ থেকে যাত্রা শুরু করে বর্তমানে প্রায় ৩২ হাজার সদস্যের পরিবারটি আগামীর পথে এগিয়ে চলেছে।
এই গ্রুপটি এর আগেও সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে বিভিন্ন সামাজিক কাজে নিজেদের নিয়োজিত রেখে আসছে; তারমধ্যে অন্যতম হচ্ছে দেশ জুড়ে পরিচ্ছন্নতা ও জনসচেতনতা অভিযান, প্রতিবন্ধী শিশুদের সহায়তা কার্যক্রম, ফ্রি হেলথ ক্যাম্প, অসহায় মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র, নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস সরবরাহ ও খাবার বিতরণ, বৃদ্ধাশ্রমে চিকিৎসা ও খাবার সরবরাহ এবং রক্তদান কর্মসূচীসহ বিবিধ কার্যক্রম।


একটি অনলাইন ভিত্তিক গ্রুপ হয়েও বন্ধুরা শুধু অনলাইনেই সীমাবদ্ধ না থেকে দেশের, সমাজের বিভিন্ন কাজে এগিয়ে এসেছে গ্রুপটি। এর সাথে যুক্ত হয়েছে সমাজের কিছু সচেতন সু-নাগরিক, যারা এই গ্রুপটি কে প্রতিনিয়ত ভালো কাজে উৎসাহ দিচ্ছেন।
ধারাবাহিক ভাবে গ্রুপের পিছিয়ে পড়া সদস্যসহ দেশের প্রতিটি অঞ্চলের অসহায় মানুষদের পাশে চিকিৎসা সেবা সহ সকল মৌলিক সেবা পৌঁছে দিতে পরিকল্পনা করছে এই গ্রুপের সদস্যরা ।

ঢাকা , ০২ আগস্ট,(ডেইলি টাইমস২৪) /আর এ কে

Show More

আরো সংবাদ...

Back to top button
Close